বিকাল ৫:০৫,   মঙ্গলবার,   ৩১শে মার্চ, ২০২০ ইং,   ১৭ই চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ,   ৬ই শাবান, ১৪৪১ হিজরী

ধর্মপাশায় ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে বন্ধ

ধর্মপাশা প্রতিনিধি :
সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেয়েছে অস্টম শ্রেণিতে পড়ুয়া এক ছাত্রী। তার বাড়ি উপজেলার সদর ইউনিয়নের ফাতেমানগর গ্রামে। শুক্রবার দুপুরে তার বিয়ে হওয়ার কথা ছিল।
জানা যায়, একই গ্রামের তৈয়ব আলীর ছেলে মোশারফ হোসেনের সাথে ওই ছাত্রীর বিয়ে ঠিক করা হয়েছিল। শুক্রবার দুপুরে এ বিয়ে সম্পন্ন হওয়ার কথা ছিলো। কিন্তু এ বাল্যবিয়ের খবর পেয়ে ওইদিন দুপুর ১২টার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ধর্মপাশা থানা পুলিশকে নিয়ে ছাত্রীর বাড়িতে যান এবং বাল্যবিয়ের সত্যতা পান।
এ সময় তিনি ছাত্রী ও বরের পরিবারকে লোকজনকে বাল্যবিয়ের কুফল এবং রাষ্ট্রীয় আইনে এর স্বীকৃতি নেই বলে জানালে বাল্য বিয়ে বন্ধ হয়। এছাড়াও মেয়ের বয়স ১৮ বছর না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দিবেনা বলে অঙ্গীকার করেছে ছাত্রীর পরিবার।
ধর্মপাশা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) আবু তালেব বলেন, ‘বাল্যবিয়ে বন্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।’



error: Content is protected !!