দুপুর ১২:০৪,   শনিবার,   ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং,   ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ,   ২৭শে জমাদিউস-সানি, ১৪৪১ হিজরী

সুনামগঞ্জে দুই দিনব্যাপি ধামাইল উৎসব শুরু

স্টাফ রিপোর্টার :
‘ভ্রমর কইয়ো গিয়া, শ্রীকৃষ্ণ বিচ্ছেদের অনলে অঙ্গ যায় জ্বলিয়া রে’, ‘শ্যামের বাঁশিরে ঘরের বাহির করলে আমারে যে যন্ত্রণা বনে যাওয়া গৃহে থাকা না লয় মনে মতো’ এমন অনেক জনপ্রিয় গানের লেখক, ধামালি নৃত্য’র প্রবর্তক রাধারমণ দত্তের স্মরণে তৃতীয়বারের মতো সুনামগঞ্জে শুরু হয়েছে ২ দিন ব্যাপি ধামাইল উৎসব।
বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শহরের জেলা শিল্পকলা একাডেমির হাসন রাজা মিলনায়তনে আন্তর্জাতিক রাধারমণ পরিষদের আয়োজনে ধামাইল উৎসবের উদ্বোধন করেন, ভারতীয় সহকারি সহকারি হাইকমিশনার সেকেন্ড সেক্রেরোটারি টিজে রুমেস।
আন্তর্জাতিক রাধারমণ পরিষদের সভাপতি ডি. চৌধুরী অসিতের সভাপতিত্বে ও জেলা শিল্পকলা একাডেমির কালচারাল অফিসার আহমেদ মঞ্জুরুল হক চৌধুরী পাভেলের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত, জেলা উদীচীল সভাপতি শীলা রায়, শিক্ষাবিদ অধ্যক্ষ(অব) পরিমল কান্তি দে, সুনামগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি পংকজ কান্তি দে, জেলা শিল্পকলা একাডেমীর সহ-সভাপতি প্রদীপ পাল নিতাই, সাংবাদিক খলিল রহমান প্রমুখ। সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন, জেলা শিল্পকলা একাডেমীর সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. শামছুল আবেদীন।  
আলোচনা সভা শেষে একুশে পদকপ্রাপ্ত প্রবীণ লোক সংগীত শিল্পী সুষমা দাশকে আজীবন সম্মাননা প্রদান করা হয়।
পরে সুনামগঞ্জের নৃত্যাঙ্গন, শতদল শিল্পী গোষ্ঠী, বুলবুল সংগীত নিকেতন, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ শিল্পকলা একাডেমী ও জগন্নাথপুর উপজেলা আন্তর্জাতিক রাধারমণ পরিষদ এবং শ্রীমঙ্গল উপজেলার নবনগারী ধামাইল সংঘের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হয় ধামাইল নৃত্য।



error: Content is protected !!